দেশে প্রথম করোনাভাইরাসের ভ্যাকসিন আবিষ্কারের দাবি গ্লোব বায়োটেকের

টিপু সুলতান,স্টাফ রিপোর্টারঃ দেশে প্রথম বাংলাদেশি কোম্পানি হিসেবে করোনাভাইরাসের ভ্যাকসিন আবিষ্কারের দাবি করেছে “গ্লোব বায়োটেক লিমিটেড”।গত বৃহস্পতিবার (২ জুলাই) দুপুরে রাজধানীর তেজগাঁওয়ে গ্লোব বায়োটেক লিমিটেডের প্রধান কার্যালয়ে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে করোনাভাইরাসের টিকা আবিষ্কারের ঘোষণা দেন প্রতিষ্ঠানটির রিসার্চ অ্যান্ড ডেভেলপমেন্ট ডিপার্টমেন্টের প্রধান ডা. আসিফ মাহমুদ।

গ্লোব বায়োটেক লিমিটেডের আবিষ্কৃত করোনাভাইরাসের ভ্যাকসিন বর্তমানে যে অবস্থায় রয়েছে সেটাকে বিরাট অগ্রগতি হিসেবে সংবাদ সম্মেলনে উল্লেখ করা হয়। সংবাদ সম্মেলনে বলা হয়, ভ্যাকসিনটি দ্বিতীয় ধাপে এনিমেল মডেলে ট্রায়াল করা হবে। এজন্য ৬ থেকে ৮ সপ্তাহ সময় লাগবে। এরপরই এই ভ্যাকসিন মানব শরীরে ক্লিনিক্যাল ট্রায়ালে যাবে। ৬ থেকে ৮ সপ্তাহ পর ভ্যাকসিনটি ক্লিনিক্যাল ট্রায়ালে যাওয়ার জন্য সরকারের যথাযথ কর্তৃপক্ষের কাছে অনুমতি চাওয়া হবে। সরকারের অনুমতি পেলেই ভ্যাকসিনের ক্লিনিক্যাল ট্রায়াল করা হবে।

আসিফ মাহমুদ জানান, বিএমআরআই থেকে অনুমোদন পেলে মানবদেহে এই টিকার পরীক্ষামূলক প্রয়োগ শুরু হবে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের তত্ত্বাবধানে।
গ্লোব বায়োটেক লিমিটেডের চেয়ারম্যান মো. হারুনুর রশীদ সংবাদ সম্মেলনে বলেন, “করোনাভাইরাসের টিকা যদি বাইরে থেকে আমদানি করতে হয় তাহলে খরচের পরিমাণ অনেক বেশি হয়ে যাবে। তবে, আমাদের এই টিকার দাম কেমন পড়বে সে বিষয়ে এখনই কিছু বলা সম্ভব না।”

শেয়ার করুন

কমেন্ট করুন

     এই ধরনের আরও খবর

ফেসবুক

পুরাতন খবর খুঁজুন